toggle menu
Nahdatul ummah online Islamic Academy-NOIA
লক্ষ্য-উদ্দেশ্য-
আল্লাহর ﷻ সন্তুষ্টি। তাঁর কালাম বা ভাষা বুঝা। তাঁর পাঠানো কিতাব কালামুল্লাহ বুঝা। যে ভাষায় আমার নবী মুহাম্মাদ ﷺ কথা বলতেন সেই ভাষা বুঝা। যে ভাষায় আমাদের সম্মানিত সাহাবায়ে কেরাম পরস্পর কথা বলতেন সে ভাষা বুঝা। আরবি ভাষায় পাণ্ডিত্য হাসিল করা সত্ত্বেও অনারবি ভাষায় কথা বলা একজন মানুষকে নেফাকে পৌঁছে দিতে পারে বলে আশঙ্কা করেছেন আমাদের নবী মুহাম্মাদ ﷺ। তিনি বলেন;
قال رسول الله صلى الله عليه وسلم : (( من يحسن أن يتكلم بالعربية فلا يتكلم بالعجمية فانه يورث النفاق )) (أخرجه الحاكم في المستدرك)
যে ব্যক্তি মাধুর্যতা রক্ষা করে সুন্দর করে আরবী ভাষায় কথা বলতে পারে সে যেন অনারবী ভাষায় কথা না বলে। কেননা (অনারবী ভাষায় কথা বললে) তা তাকে নেফাকে নিয়ে গিয়ে ছাড়বে।
সে-ই আরবী ভাষা যে আরবি ভাষাকে আমাদের আমিরুল মু’মুনিন উ*ম*র ইবনু খাত্তাব রাদিআল্লাহু তাআ’লা আনহু বলেছেন দিনের অবিচ্ছেদ্য অংশ।
؛ قال عمر بن الخطاب : (( تعلموا العربية فإنها من دينكم ,))
উমর (রাদিআল্লাহু তাআ’লা আনহু) বলেন তোমরা আরবী ভাষা শিক্ষা করো কেননা আরবি ভাষা তোমাদের দ্বীনেরই এক অবিচ্ছেদ্য অংশ।
যে ভাষা আয়ত্ব থাকা সত্ত্বেও অনারবি ভাষায় কথা বলা আলাপ আলোচনা করাকে আমাদের সম্মানিত সালাফরা অপছন্দ করতেন। ইমাম শাফেয়ী রহিমাহুল্লাহু তার মজলিশে অনারবী ভাষায় কথা বলাকে অপছন্দ করতেন।
وكره الشافعي لمن يعرف العربية أن يتكلم بغيرها
ইমাম শাফেয়ী রহ যে ব্যক্তি আরবী ভাষা আয়ত্বে থাকা
সত্ত্বেও অন্য ভাষায় কথা বলতো তাকে অপছন্দ করতেন।
শাইখুল ইসলাম ইবনু তাইমিয়া আরবি ভাষা শিক্ষাকে
বাধ্যতামূলক করে দিয়েছেন ;
و قال ابن تيمية : (( إن اللغة العربية من الدين ، ومعرفتها فرض واجب ، لأن فهم الكتاب والسنة فرض ، ولا يفهم إلا بالعربية ،
শাইখুল ইসলাম ইবনে তাইমিয়া রহ বলেন, নিশ্চয়ই আরবী ভাষা দ্বীনের এক অবিচ্ছেদ্য অংশ। তা শিক্ষা করা ফরজ ওয়াজিবের মতো গুরুত্বপূর্ণ আমল। কেননা কুরআন সুন্নাহ বুঝা ফরজ আর তা আরবী ভাষা শিখা ব্যতিরেকে বুঝা অসম্ভব, অস্বাভাবিক।
ইমাম ফারেস রহিমাহুল্লাহু বলেন; আরবি ভাষা শিক্ষাকে
আমরা ফরজ ওয়াজিব আমলের মতো গুরুত্ব দিয়ে থাকি;
وقال ابن فارس : (( لذلك قلنا أن علم اللغة كالواجب على أهل العلم لئلا يحيدوا في تأليفهم أو فتياهم ))13
ইবনে ফারীস রহ. বলেন, এই জন্যই আমরা বলে থাকি আরবী ভাষা শিক্ষা করা আহলে ইলম ব্যক্তির জন্য ওয়াজিব আমলের মতো গুরুত্বপূর্ণ আমল। যেন তাদের তাসনীফাত ও ফাতওয়া অত্যন্ত সুন্দর হয়, অধিকতর উত্তম হয়।
আমাদের একাডেমির চেষ্টা-প্রচেষ্টা সে সু-মহান আরবি ভাষার সাথে নিগুঢ় সম্পর্ক করে দেওয়া যাতে ব্যক্তি কুরআন সুন্নাহর সাথে নিগুঢ় সম্পর্ক করতে পারে। যাতে আল্লাহ তায়া’লার কালাম নবী মুহাম্মাদ ﷺ এর সুন্নাহ বুঝতে পারে। বাস্তব জীবনে আমলে নিতে পারে।
বিশেষভাবে আমাদের একাডেমি সে সকল ভাই-বোনদের জন্য ইলম শিখার একটি সহজলভ্য মাধ্যম।…..
১। জীবন সংসারের কষাঘাতে ইলমে দ্বীন শিখা
যাদের জন্য কঠিন হয়ে পড়েছে।
২। যারা স্কুল, কলেজ,ভার্সিটিতে পড়েন কিন্তু দ্বীন
শিখতে চান অথচ উপযুক্ত পরিবেশ পাচ্ছেন না।
৩। যারা মাদরাসায় পড়েছেন কিন্তু আরবিতে
যোগ্যতা অর্জন করতে পারেননি।
৪। সকল মুসলিম ইলম পিপাসু তালেবে ইলম ভাই-বোনদের জন্য।
আমাদের এ-ই একাডেমিক পড়াশোনা সু-সম্পন্ন করার পর আমরা ইযাজা সার্টিফিকেট দিবো। এখানে দেশ সেরা সর্বজন স্বীকৃত আলিম উলামার সাক্ষর থাকবে। তবে একটি অনুরোধ যারা স্রেফ ইজাযা বা সার্টিফিকেট নেওয়ার উদ্দেশ্যে আমাদের একাডেমিতে আসবেন তাদেরকে বলবো দুঃখিত আপনি ভুল জায়গা এসেছেন। আমরা ইজাযায় বিশ্বাসী নই আমরা বিশ্বাসী কাজে কর্মে। আপনার যোগ্যতা অর্জনে। আমাদের একাডেমিতে আসলেন কিন্তু আমাদের আশানুরূপ যোগ্যতা হাসিল করতে পারেননি তাহলে আপনি ব্যর্থ। আমরা বলবো আপনি যদি সত্যিই যোগ্যতা হাসিল করতে চান তাহলে আসুন নতুবা অন্য কোথাও যান। সার্টিফিকেট নিয়ে নিন।
১। বিনা অযুহাতে একাধিক দারসে অনুপস্থিতি, তামরীন গ্রুপে অনুপস্থিতি, পড়াশোনায় মাত্রাতিরিক্ত অবহেলা করলে একাডেমি তাকে পড়াশোনার সুযোগ দিতে অপারগ থাকবে।
২। আমাদের সম্মানিত সালাফ, আকাবীর, শ্রদ্ধেয় আলিম-ওলামা নিয়ে বিরুপ মন্তব্য, কটুবাক্য, মাজহাব নিয়ে অহেতুক বাড়াবাড়ি-ছাড়াছাড়ি করলে আপনাকে বিনা নোটিশে বহিষ্কার করা হবে।
৩। ইলমে দ্বীন শিখার উদ্দেশ্য যদি দুনিয়া হাসিল হয়, তাহলে একাডেমী আপনার থেকে সম্পূর্ণরূপে সম্পর্ক ছিন্ন করে নিবে। এগুলো আমাদের একাডেমির সর্বদা পালনীয় বিশেষ নিয়মাবলী। এইক্ষেত্রে কাউকে ছাড় দেওয়া হবেনা।
একজন তালেবে ইলমের আরবি ভাষা শিক্ষায় সহজতা ও কাঙ্খিত ফলাফল বিবেচনায় আমরা নিম্নোক্ত কিতাবগুলো যত্নের সাথে পাঠদান করব।
১। এসো আরবি শিখি (১-৩)
২। আত তামরীনুল কিতাবী।
৩। কাসাসুন নাবিয়্যিন (১-২ খণ্ড)
৪। এসো নাহব শিখি।
৫। আল কিরায়াতুল রাশিদিয়া।(১-২ খণ্ড)
৬। আরবি বিভিন্ন ছোট ছোট সাহিত্যের কিতাব।
৭। মুন্তাখাব আয়াত। (কুরআনের সহজবোধ্য নির্বাচিত আয়াত।)
৮। মুন্তাখাব হাদিস। (সহজবোধ্য নির্বাচিত হাদিস।)
আরবি ভাষায় শিক্ষা বিভাগে ভর্তি ফি ও মাসিক ওজিফা।
ভর্তি ফি ৫১০ টাকা।
ওজিফা ৫১০ টাকা।
মেধাবী পরিশ্রমী দরিদ্র তালিবুল ইলমের জন্য বিবেচনা করা হবে।
দারসের দিন ও সময়
দারস সাপ্তাহে চারদিন।২দিন ছেলে শিক্ষার্থীদের জন্য
আর দুইদিন মেয়ে শিক্ষার্থীদের জন্য।
রবিবার,বুধবার, বৃহস্পতিবার, শুক্রবার,
সময় পরবর্তীতে জানিয়ে দেওয়া হবে ।
দারস হবে জুম লাইভে। এ ছাড়া প্রতিটি বিষয়ের উপর
ভিডিও লেকচার তামরীন গ্রুপে দিয়ে দেওয়া হবে ইনশাআল্লাহ।
তৃতীয় ব্যাচের দরস শুরু হবে আগামী পহেলা অক্টোবর।
আগ্রহী প্রার্থীকে আগামী ৩০ সেপ্টম্বরের পূর্বে যোগাযোগ
করার জন্য অনুরোধ রইলো। আসন সংখ্যা সীমিত।
ভর্তির জন্য যোগাযোগ করুন-↓